কোকেন আটক : যুক্তরাষ্ট্রের পর বাংলাদেশের অবস্থান

bangla
Share Button

বাংলা ফটো নিউজ : চার মাসের অভিযানে সম্প্রতি ৩২ মেট্রিক টন কোকেন এবং ২ টন হেরোইন জব্দ করেছে যুক্তরাষ্ট্রের কোস্ট গার্ডের সদস্যরা। ইতিহাসের সবচেয়ে বড় মাদক চালান জব্দের ঘটনা বলে দাবি করেছেন কোস্ট গার্ড সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তারা। এদিকে ৬০ কেজি কোকেন আটক করে বাংলাদেশের ইতিহাসে রেকর্ড গরেছে শুল্ক গোয়েন্দা। চলতি বছরের গত ৬ জুন সূর্যমুখী তেলের ড্রামের সাথে আসা ৬০ কেজি কোকেন জব্দ করা হয়। যার মূল্য ৩০০ কোটি টাকার উর্দ্ধে বলে দাবি শুল্ক গোয়েন্দা বিভাগের। অপর দিকে যুক্তরাষ্ট্রে আটক কোকেন ও হেরোইনের মূল্য প্রায় ১০০ কোটি ডলার সমপরিমান বাংলাদেশী ৮০০০ কোটি টাকা।

অপরাধ বিশেষজ্ঞরা বলছেন বিশ্বের ইতিহাসে সবচেয়ে কোকেন ও হেরোইনের সবচেয়ে বড় চালান বর্হিবিশ্ব আটক করা হয়েছে। কিন্তু বাংলাদেশে কাস্টমস ইন্ট্রিলিজেন্ট ৬০ কেজি কোকেন জব্দ করে ইতিহাস স্থাপন করেছে।

প্রসঙ্গগত গত এপ্রিল থেকে জুলাই পর্যন্ত সময়ে অভিযানে ৩০টি নৌযান এসব মাদক উদ্ধার করে। এসব মাদক চালানের গন্তব্য ছিল যুক্তরাষ্ট্র। তবে জব্দ করা এই মাদকের পরিমাণ মাঝারি মানের ১৭টি গাড়ির সমান। পুরো মাদকের চালান খালাস হতে চার ঘণ্টারও বেশি সময় লেগে যায়। যুক্তরাষ্ট্রের কোস্ট গার্ডের সদস্যরা ক্যালিফোর্নিয়ার সান দিয়েগো নৌ ঘাঁটিতে নোঙর করেছে। ব্রিটেনের একটি উপকূল থেকে সম্প্রতি কোকেনের একটি বড় চালান আটক করা হয়। এর মূল্য প্রায় ৭৫ কোটি ডলার। দেশটিতে আটক হওয়া এটাই এ ধরনের মাদকের সবচেয়ে বড় চালান বলে ধারণা করা হচ্ছে।

বিভিন্ন সংবাদ সংস্থার সূত্রে জানা গেছে, তাঞ্জানিয়ার নিবন্ধিত একটি নৌকা থেকে ৩ মেট্রিক টনেরও বেশি কোকেন আটক করা হয়। এ মাসে ব্রিটেনের নৌবাহিনী মাদকবাহী ওই নৌকার গতিরোধ করে এবং তল্লাশির জন্য স্কটল্যান্ডের একটি বন্দরে নিয়ে যাওয়া হয়। ব্রিটেনের জাতীয় অপরাধ সংস্থা (এনসিএ) সূত্র জানায়, ব্রিটেনের বাজারে আটক হওয়া কোকেনের মূল্য প্রায় ৭৭ কোটি ডলার। ব্রিটেনে ‘এ’ শ্রেণির মাদক আটকের এটাই সবচেয়ে বড় ঘটনা বলে ধারণা করা হচ্ছে। কোকেনের পাশাপাশি তুরস্কের নয় ক্রুকেও আটক করা হয়েছে। তাদের বয়স ২৬ থেকে ৬৩ বছরের মধ্যে। তাদের বিরুদ্ধে মাদক পাচারের অভিযোগ আনা হয়েছে। তবে ক্রুরা এ ব্যাপারে কোনো বিবৃতি দেয়নি এবং তারা কারাগারেই আছে।

উল্লেখ্য, বাংলাদেশে ২০১৩ সালের জুন মাস থেকে ২০১৫ সালের মে পর্যন্ত অথাৎ ২৩ মাসে ২৭ মন স্বর্ণ চোরাচালানসহ ৯২১ কোটি টাকা রাষ্ট্রীয় কোষাগারে জমা দিয়েছে এই সংস্থা। শুল্ক গোয়েন্দার মহাপরিচালক ড. মইনুল খান বলেন, শুল্ক গোয়েন্দা বাহিনীর ততপোরতায় চোরাচালান কমে গেছে। এতে সরকারের আরো ৬ হাজার কোটি টাকার রাজস্ব আদায় হয়েছে। তবে তিনি দাবি করেন, লোকবলের অভাবে সব জায়গায় অভিযান পরিচালনা করা সম্ভব হয়না। নৌপথ এবং বিমানপথসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে ১২টিরও বেশি পথ দিয়ে চোরাচালানকারিরা যাওয়া আসা করে থাকে বলে জানান শুল্ক গোয়েন্দার মহাপরিচালক ড. মইনুল খান।

এছাড়াও চলতি বছরের গত ৩০ এপ্রিল উত্তর সাগরে একটি জাহাজ থেকে বৃটেনের সবচেয়ে বড় মাদকের চালান আটক হয়েছে। রয়্যাল নেভির হাতে আটক নেশা দ্রব্যের মধ্যে রয়েছে কোকেন। যার পরিমাণ ৩ টনের অধিক। এর বাজার মূল্য প্রায় ৫০০ মিলিয়ন ইউরো। রয়্যাল নেভী এবং বোর্ডার ফোর্স এর কর্মকর্তারা আবেরদিনশায়ার কোস্টের ১শ` মাইল পূর্বে নৌযানটিকে আটক করে তারা।

এবিষয়ে বিশেষজ্ঞরা জানান, শুল্ক গোয়েন্দার ততপোরতায় বর্তমানে বাংলাদেশে স্বর্ণ চোরাচালান একেবারেই কমে গেছে। অপর দিকে অবৈধভাবে বিদেশ থেকে পণ্য আসা প্রায় বন্ধ হয়েছে।

 

 






Related News

bpn news

সাভার কৃষি ব্যাংক শাখার ৬৪ কোটি টাকা লোপাটের তদন্তে দুদক

Share Button

বাংলা ফটো নিউজ : বাংলাদেশ কৃষি ব্যাংকের সাভার শাখা থেকে প্রায় ৬৪ কোটি টাকা লোপাটেরRead More

Ashulia

আশুলিয়ায় বেদে নারীদের তৈরি পোশাক বিক্রির শো-রুম উদ্বোধন

Share Button

বাংলা ফটো নিউজ (আশুলিয়া) : ঢাকা জেলা পুলিশ প্রশাসনের উদ্যোগে সাভারের বেদে সম্প্রদায়ের নারীদের তৈরীRead More

  • পেশীশক্তির কাছে জিম্মি ক্যাবল ব্যবসায়ী
  • কোকেন আটক : যুক্তরাষ্ট্রের পর বাংলাদেশের অবস্থান
  • সাভারে অবৈধ গ্যাস সংযোগের হিড়িক
  • দেশের উন্নয়নের মূল চালিকাশক্তি যুব সমাজ
  • আশুলিয়ায় ঢাকা ডিইপিজেড হাসপাতাল কতৃপক্ষকে এ্যাম্বুলেন্স প্রদান
  • সাভার পৌরসভার ২৫তম বাজেট ঘোষনা
  • ঈদ সালামির নতুন নোট পাবেন যেখানে
  • রাজধানীতে পৃথক অভিযান ১৯ কোটির জাল স্ট্যাম্পসহ গ্রেফতার ১