\ খাদ্য নিরাপত্তায় বাংলাদেশ এখন উদাহরণ: খাদ্যমন্ত্রী | Bangla Photo News
Sunday , June 24 2018
Homeজাতীয়খাদ্য নিরাপত্তায় বাংলাদেশ এখন উদাহরণ: খাদ্যমন্ত্রী
খাদ্য নিরাপত্তায় বাংলাদেশ এখন উদাহরণ: খাদ্যমন্ত্রী

খাদ্য নিরাপত্তায় বাংলাদেশ এখন উদাহরণ: খাদ্যমন্ত্রী

বাংলা ফটো নিউজ : সারাবিশ্বের মধ্যে খাদ্য নিরাপত্তায় বাংলাদেশ সবার কাছে এখন উদাহরণ বলে জানিয়েছেন খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম।

বুধবার ( ২১ মার্চ) রাজধানীর আন্তর্জাতিক কনভেনশন সিটি বসুন্ধরায় (আইসিসিবি) আয়োজিত ফুড অ্যান্ড এগ্রো বাংলাদেশ ইন্টারন্যাশনাল এক্সপো, তৃতীয় এগ্রোক্যাম বাংলাদেশ এক্সপো ও তৃতীয় ইন্টারন্যাশনাল পোল্ট্রি অ্যান্ড লাইভস্টক বাংলাদেশ এক্সপোর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে এ কথা জানান তিনি। প্রদর্শনী তিনটির আয়োজন করে সেমস গ্লোবাল।

কামরুল ইসলাম বলেন, বৈশ্বিক খাদ্য নিরাপত্তার অবস্থা নিয়ে জাতিসংঘের বিশ্ব খাদ্য ও কৃষি সংস্থা একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে। সংস্থাটি দীর্ঘ মেয়াদে খাদ্য নিরাপত্তা অর্জনে বাংলাদেশের অগ্রগতির তাৎপর্য উল্লেখ করে বিশ্বের জন্য উদাহরণ হিসেবে চিহ্নিত করেছে।

তিনি বলেন, দেশে বর্তমানে কৃষকরা কাজের সময় বিদ্যুৎ, সার, পানি পাচ্ছে। কৃষকদের জন্য যা যা করার দরকার সরকার তাই করেছে। দেশ এখন খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণ। দেশের প্রধান খাদ্য শস্য হলো ধান। আর এ ধান দিয়েই কৃষকরা তাদের জীবিকা নির্বাহ করে। তারা যদি ঠিকমতো চালের মূল্য না পায় তাহলে তারা ধান উৎপাদন থেকে মুখ ফিরিয়ে নেবে। এতে করে দেশ খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণ হতে প্রধান বাধা হয়ে দাঁড়াবে।

পাশ্ববর্তী দেশগুলোর তুলনায় বাংলাদেশে চালের দাম খুব একটা বেশি না দাবি করে খাদ্যমন্ত্রী বলেন, চালের দাম বর্তমানে কমছে। আমরা চাল আমদানি শুরু করেছি সামনে দাম আরও কমবে।

মন্ত্রী বলেন, আগে একজন রিকশাচালক যে টাকা আয় করতেন তা দিয়ে দুই থেকে তিন কেজি চাল কিনতে পারতেন। বর্তমানে তারা প্রতিদিনের আয়ের টাকা দিয়ে ১০ থেকে ১১ কেজি চাল কিনতে পারছেন। দেশে মানুষের আয় বেড়েছে, দেশের মানুষের জীবনযাত্রার মান বেড়েছে।

চার দিনব্যাপী এক্সপো উদ্বোধনের পরে খাদ্যমন্ত্রী কামরুল ইসলাম মেলার বিভিন্ন স্টল ঘুরে দেখেন।

২১ মার্চ থেকে শুরু হওয়া এ প্রদর্শনী চলবে আগামী শ‌নিবার (২৪ মার্চ) পর্যন্ত। প্রতিদিন সকাল সাড়ে ১০টা থেকে রাত সাড়ে ৮টা পর্যন্ত প্রদর্শনী সবার জন্য উন্মুক্ত থাকবে।

আ‌য়োজকরা জানায়, এবারের প্রদর্শনীতে বাংলাদেশ ছাড়াও থাইল্যান্ড, ইন্দোনেশিয়া, যু্ক্তরাষ্ট্র, শ্রীলঙ্কা, চায়না, রাশিয়া, ভিয়েতনাম ও ভারতের খাদ্যপণ্য, কৃষিজাত উপকরণ উৎপাদন ও প্রক্রিয়াজাতকরণ শিল্পের দেশি-বিদেশি প্রায় ১৩০টি প্র‌তিষ্ঠানের ১৮০টি স্টল রয়েছে।

উদ্বোধন অনুষ্ঠানে আ‌রও উপ‌স্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ফুড সেইফটি অথ‌রি‌টির চেয়ারম্যান মোহাম্মদ মাহফুজুল হক ও সেমস গ্লোবাল এর ব্যবস্থাপনা প‌রিচালক মেহরুন এন ইসলাম প্রমুখ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*