\ রোগ প্রতিরোধক কোষ সৃষ্টি করে ওটস | Bangla Photo News
Friday , May 29 2020
Homeমুক্তমতরোগ প্রতিরোধক কোষ সৃষ্টি করে ওটস
রোগ প্রতিরোধক কোষ সৃষ্টি করে ওটস

রোগ প্রতিরোধক কোষ সৃষ্টি করে ওটস

বাংলা ফটো নিউজ : ওটসের ছবি দেখে অনেকে একে গম বলে ভুল করতে পারেন। এটি গম, যব এবং পায়রা জাতীয় উদ্ভিদ শস্য। ওটসে রয়েছে শহক্তিশালী ফাইবার। এ ফাইবার রোগ প্রতিরোধক কোষ সৃষ্টি করে ও শরীরকে আরো বেশি রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা সম্পন্ন করে তুলে। ওটের বেটা গ্লুকোনের অ্যান্টি মাইক্রোবাইয়াল ও অ্যান্টি অক্সিডেন্ট উপাদান রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়িয়ে ব্যাকটেরিয়াল ইনফেকশন থেকে শরীরকে মুক্ত রাখতে সহায়তা করে।

ভীষণরকম উপকারী এই খাদ্যটি হর-হামেশাই সারা বিশ্বের মানুষ খাচ্ছেন। এক কাপ ওটস এ ১৪০ ক্যালরি, তাতে ২দশমিক ৫ গ্রাম ফ্যট, ২৫ গ্রাম কার্বো হাইড্রেট, আর ৫ গ্রাম প্রোটিন আছে। এর বীজের খোসা দিয়ে তৈরি হয় ঔষধ। ত্বকের সমস্যা , হৃদ রোগের ঝুঁকি হ্রাস, উচ্চ রক্ত চাপ নিয়ন্ত্র, ব্রেস্ট ক্যান্সারের ঝুঁকি হ্রাস সহ নানাবিধ রোগের বিরুদ্ধে ওট কার্যকর। তাই দৈনিক খাদ্য তালিকায় একে রাখা যেতে পারে।

চিন্তা দূর করে এটি মস্তিষ্কে সেরোটোনিনের মাত্রা বৃদ্ধি করে। সেরোটোনিন হল এমন একটি হরমোন যা ক্ষুধা, ঘুম ও মেজাজ নিয়ন্ত্রণ করে। সেরোটোনিন থাকার ফলে ওটস চিন্তা বা দুঃখ দূর কমাতে সাহায্য করে। ম্যাগনেসিয়াম গভীর ঘুমের জন্য দায়ী। ওটসে রয়েছে ম্যাগনেশিয়াম তাই এটি মনকে শান্ত ও প্রফুল্ল রাখতে সহায়ক ভুমিকা পালন করে।

 

এখন পর্যন্ত আমাদের দেশে ওটস জনপ্রিয় খাদ্য না হলেও পশ্চিমা বিশ্বে এটি একটি বহুল পরিচিত একটি খাবার। তারা ব্রেকফাস্টে ওটস খেতে পছন্দ করে করে। ইদানিং ওটসমিল আমাদের দেশেও জনপ্রিয় হচ্ছে। ওটস আর ওটস মিলের পার্থক্য হলে ওটস থেকে যখন প্রক্রিয়াজাত খাদ্য বানানো হয় তখন একে ওটসমিল বলে।

 

যারা ওজন নিয়ন্ত্রণ করতে চান তারা চাইলে সকাল ও রাতে ওটস খেতে পারেন। ওটস খেলে ক্ষিদা তো মিটবেই সেই সাথে আপনার ওজন বেড়ে যাবার ভয় নেই। বরং ওজন বাড়ার বদলে কমতে থাকতে।ওটে থাকা বিটা গ্লুকেন ফাইবার হাইলি ভিসকাস হয়‚ যে কারণে স্লো ডাইজেস্ট হয় আর অনেক সময় পেট ভর্তি রাখে।

 

রোগ প্রতিরোধ এবং প্রতিকারের জন্য ওষুধের উপর নির্ভরশীলতা কমিয়ে প্রাকৃতিক প্রতিষেধকগুলো সম্পর্কে ধারণা এবং এদের ব্যবহার জানা জরুরী। সঠিক খাদ্য নির্বাচন এবং ব্যায়াম অসুখ বিসুখ থেকে দূরে থাকার মূলমন্ত্র। রোগের প্রতিকার নয়, প্রতিরোধ করা শিখতে হবে।

 

ওটস কোথায় পাওয়া যায় এবং ওটসের দাম কেমন?
কোয়েকার ওটস সুপার শপগুলোতে পাওয়া যায় শুধু খেয়াল রাখবেন অতিরিক্ত উৎসাহে আবার মসলা দেয়া ওটমিলের প্যাক কিনে আনবেন না যেন! ভালোভাবে প্যাকের গায়ের লেখা পরে পিওর ওটমিল কিনবেন। ওটসের দাম সাধারনত ১২০-৩৫০ টাকার মধ্যে । এছাড়া প্যাকেট জাত প্রক্রিয়া বিহীন ওটস পাওয়া যায় সেটি আরো ভাল কিন্তু দাম একটু বেশি। এটি আগোরা, মিনাবাজার, নন্দন, স্বপ্ন সহ প্রায় সব সুপার শপেই কিনতে পাবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*